স্কুল ছুটিতে ৩ কোটি টাকা কামিয়ে নিল স্কুল পড়ুয়া, বয়স মাত্র ১২ বছর

প্রতিভার কোনও বয়স হয় না। না কোনো দামি ডিগ্রি থাকার প্রয়োজন হয়। কোন কাজ দক্ষতা এবং মন থেকে করলে সেই কাজটি এমনিতেই প্রতিভায় পরিণত হয়। তেমনি করে দেখলেন ১২ বছর বয়সী বেঞ্জামিন। তিনি ‘অদ্ভূত তিমি’ নামে বিশেষ শিল্প তৈরি করে লাখ টাকার উপর উপার্জন করছেন। আসুন বিস্তারিত জেনে নিন।

‘অদ্ভুত তিমি’ শিল্পকর্মটি পিকসার্ট আর্টওয়ার্ক বলা হয়ে থাকে। এর বাজারে মূল্য অনেক বেশি। বেঞ্জামিন ডিজিটাল আর্টিফ্যাক্টগুলি NFTর কাছে বিক্রি করেছেন। এটি মূলত ক্রিপ্টোকারেন্সি মাধ্যমে অর্থ প্রদান করা হয়ে থাকে এবং ইথিরিয়াম পেয়েছে তিনি।

বেঞ্জামিন আহমেদ লন্ডনে থাকেন। তাঁর বর্তমান বয়স ১২ বছর। তাঁর বাবা হলেন সফটওয়্যার ডেভেলপার। তিনি বেঞ্জামিন এবং তার ভাইকে কোডিং শিখতে মোটিভেটেড করেন। বেঞ্জামিন পাঁচ বছর বয়স থেকে কোডিং শেখা শুরু করে।

বেঞ্জামিন প্রথমবার ‘মাইনক্রাফট’ গেম বানিয়ে ছিলেন। কিন্তু এর জন্য খুব একটা মূল্য তিনি পাননি। এইবার তিনি ‘অদ্ভুত তিমি’ নামে এই বিশেষ শিল্প তৈরি করেন। এতে তার নাম চারিদিকে ছড়িয়ে পড়ে। তিনি নিজেও আয় করছেন ২ কোটি ৯৩ লক্ষ টাকা। এই পুরো শিল্পকর্মের জন্য বেঞ্জামিনকে খরচ বহন করতে হয়েছিল 300 ডলার। যেটা ভারতীয় মূল্য 22 হাজার টাকা। ভবিষ্যতে তিনি সুপারহিরো থিমযুক্ত শিল্পের উপর কাজ করবেন। তাঁর ইউটিউবে চ্যানেলও রয়েছে।

তাঁর বাবার মতে তাঁর দুই সন্তান খুব ছোট বয়স থেকেই কোডিং শেখা শুরু করেছিল, আনন্দ এবং আগ্রহের সাথে। দুই ভাই নিয়মমাফিক ২০ থেকে ৩০ মিনিট কোডিং অনুশীলন করে থাকে। বেঞ্জামিন নিজেকে জেফ বেজোস এবং ইলন মাস্কের মত সফল উদ্যোক্তা হিসেবে নিজেকে ভবিষ্যতে দেখতে চান।

Related Articles

Back to top button