প্রেগনেন্সির সময় তালাক দিয়ে বাড়ি থেকে বের করে দিয়েছিলো স্বামী, বর্তমান ছবি দেখলে যে কেউ হবে পাগল

টেলিভিশন জগত ও সিরিয়ালকে নিয়ে মানুষের মধ্যে আলাদাই ক্রেজ কাজ করে। মানুষ যেমন সিরিয়াল দেখতে পছন্দ করে তেমন সেই সিরিয়ালে কাজ করা অভিনেতা-অভিনেত্রীদের বিষয় জানতেও উৎসাহী থাকে। আজ আমরা এই আর্টিকেলের মাধ্যমে “ভক্তি হি শক্তি হ্যা” এর এক অভিনেত্রী বিষয় কথা বলবো। ইনি দুবার ডিভোর্সের কষ্টের সম্মুখীন হয়েছেন।

এমনকি ইনি যখন প্রেগনেন্ট ছিলেন তখন তার স্বামী তাকে ছেড়ে চলে গেছিলেন। এতো কষ্টকে সামলিয়ে এই অভিনেত্রী হয়ে উঠেছেন আজ বোল্ড ও সুন্দরী। ‘ভক্তি হি শক্তি হ্যা’ ছাড়া তিনি কুমকুম, বারে আছে লাগতে হ্যা ইত্যাদি সিরিয়ালে নজর এসেছেন।আমরা কথা বলছি চাহাত খান্নার বিষয়। সম্প্রতি তিনি ইনস্টাগ্রামে নিজের বোল্ড একটি ফটো শেয়ার করেছেন যা প্রচন্ড পরিমানে ভাইরাল হচ্ছে।

তিনি এখন ভক্তদের থেকে অনেক প্রশংসা পাচ্ছেন ও দেখতেও অনেক সুন্দরী হয়ে গেছেন। এছাড়া তিনি তার পার্সোনাল লাইফের কারণে সবসময়ই আলোচনার বিষয় হয়ে থাকেন।চাহাত খান্না আজকাল মালদ্বীপে তার গরমের ছুটি কাটাচ্ছেন। সেখানের সুন্দর লোকেশনে নিজের একাধিক হট ছবি পোস্ট করছেন তিনি। বিকিনি পরা ফটো গুলিতে তাকে খুব গ্ল্যামারাস ও হট দেখাচ্ছে।

চাহাতের ফটো গুলি ইন্টারনেটে প্রচন্ড পরিমানে ভাইরাল হচ্ছে এবং তার ভক্তরা বলাবলি করছে যে ডিভোর্সের পর তিনি আরো বেশি সৌন্দর ও হট হয়ে গেছেন। চাহাত ২০১৩ সালে তার বয়ফ্রেন্ড ফারহান মির্জাকে বিয়ে করেছিলেন। ফারহান তার দ্বিতীয় স্বামী ছিল। কিন্তু তারপর ২০১৮ তে তিনি তার স্বামী ফারহানের সঙ্গে বিবাহ ভেঙে দেন।

বিবাহ ভাঙার কারণ তিনি জানান যে ফারহান তাকে খুব টর্চার করতো ও মারধোর করতো।ফারহান কে নিয়ে তিনি আরো বলেছিলেন যে তার স্বামী সবসময় তাকে নজরে নজরে রাখতেন। এক ঘর থেকে আরেক ঘরেও চাহাত একা যাওয়ার অনুমতি দিতেন না এবং তাকে তার দুই সন্তানের সাথে কোথাও বাইরেও যেতে দিতেন না।

তার স্বামী ফারহান ভয় পেতেন যে চাহাত তাকে ছেড়ে না চলে যাক। তারপর তিনি চাহাতের উপর অনেক নোংরা অভিযোগ করা শুরু করেছিলেন ও চাহাতের দ্বিতীয় ডেলিভারির ৪ দিন পর চাহাতকে বাড়ি থেকে পর্যন্ত বার করে দিয়েছিলেন। চাহাত জানিয়েছেন যে এতো কিছুর পর তিনি ৪ বছর পর্যন্ত এসব সহ্য করছিলেন কারণ তিনি ভয় পাচ্ছিলেন যে লোক তাকেই ভুল বুঝবে।

চাহাতের প্রথম বিয়ে তখন হয়েছিল যখন চাহাতের বয়স মাত্র ২০ বছর ছিল। চাহাত জানিয়েছেন যে তার প্রথম বিয়েটি মাত্র ৭ মাস টিকেছিল এবং তার প্রথম স্বামীও তাকে মারপিট ও টর্চার করতো।

Related Articles

Back to top button