২ টাকার জন্য ৩ বছরের আইনি লড়াইয়ে জয় পেলেন সুরজিৎ, রেলকে দিতে হবে ২.৪৩ কোটি টাকা

২টাকার জন্য ৩ বছরের আইনি লড়াই অবশেষে জিতে ফিরলেন এক ব্যাক্তি। রেলকে দিতে হবে ২ কোটি ৪৩ লক্ষ টাকা। তবে কেন দিতে হল রেলকে এতো লক্ষ টাকা! ভারতের বিভিন্ন সরকারি কাজে ভুল এটা নতুন কিছু নয়। অধিকাংশ মানুষ এই ভুল উপেক্ষা করে যান। তবে এদেশে এমন মানুষ রয়েছেন যারা নিজেদের অধিকার ছাড়তে রাজি নন।

এমন কি মাত্র ২ টাকার জন্য কোর্টে যেতেও পিছ পা হন না তারা। ঠিক তেমনই এক ঘটনা সামনে এসেছে। তার মাত্র ৩৫ টাকার জন্য ভারতীয় রেলকে দিতে হবে কোটি কোটি টাকার ক্ষতিপূরণ। তবে আসলে কি ঘটেছিল জেনে নেওয়া যাক। রাজস্থান এর কোটার বাসিন্দা সুরজিত সামির (Surjit Syami) কারনে উপকৃত হয়েছেন অনেক মানুষ। মানুষের খুব একটা লাভ না হলেও রেলের হয়েছে কোটি টাকার লোকশান।

আসলে তিনি ৩৫ টাকা ফেরত পাওয়ার জন্য ৫ বছর ধরে রেলওয়ের সাথে আইনি লড়াই চালিয়ে গেছেন। শেষ পর্যন্ত তিনি জয়ি হয়েছেন। এর শুরু ২০১৭ সালের এপ্রিল মাসে ওই দিন সুরজিত (Surjit Syami) গোলডেন টেম্পেল মিলে কোটা থেকে দিল্লিগামি ট্রেনের টিকিট বুক করেছিলেন। এর পর পয়লা জুলাই থেকে জি এস টির নতুন ব্যাবস্থা শুরু হয়,কিন্তু তার মতে তিনি এই ব্যাবস্থা শুরু হবার আগেই টিকিটটি বাতিল করেছিলেন।

এর মোট মুল্য ছিল ৭৬৫ টাকা। ক্যানসেল করাতে ১০০ টাকা কেটে নিয়ে তিনি ফেরত দিয়েছিলেন মোট ৬৬৫ টাকা কিন্তু তার দাবি ছিল যে তার কাছ থেকে ১০০ নয় ৬৫ টাকা কাটার কথা ছিল রেল এর। তার অভিযোগ ছিল তার কাছ থেকে অতিরিক্ত ৩৫ টাকা কাটা হয়। তিনি অবশ্য এও বলেন যে এই ৩৫ টাকা পেতে তিনি প্রধানমন্ত্রী, রেলমন্ত্রী, কেন্দ্রীয় মন্ত্রী অনুরাগ ঠাকুর জি এস টি কাউন্সিল এবং অর্থমন্ত্রীকে ট্যাগ করে বার বার টুইট করেছেন।

তিনি এর পর রেল ও অর্থমন্ত্রকের কেছে আর টি আই আবেদন পাঠিয়ে তার লড়াই শুরু করেন। এখানেই তিনি তার ৩৫ টাকা ফেরতের দাবি জানান। এর উত্তরে আই আর সিটি সি জানায় যে তাকে মোট ৩৫ টাকা ফেরত দেওয়া হবে। তবে এখানেই শেষ নয় তার মতে তিনি ২০১৯ সালে টাকা ফেরত পান কিন্তু এতেও সেখান থেকে ২ টাকা কেটে নেওয়া হয়েছিল।

৩৫ না তিনি পেয়েছিলেন ৩৩ টাকা। তবে নিজের ন্যায্য পাওনা পেতে পিছ পা হন তিনি তিনি। সেই ২ টাক পেতে আবার লড়াই শুরু করেন তিনি। এর পর গত শুক্রবার জয়ি হয়ে ২ টাকও ফেরত পেয়েছেন তিনি। এই কেসে জিতে তিনি প্রধানমন্ত্রীর ত্রান তহবিলে ৫৩৫ টাকা দান করেন। তার মতে টাকার অংক নয় ন্যায্য পাওনা বুঝে নিতে হয়।

Related Articles

Back to top button